ওসি প্রত্যাহারের দাবিতে ফুঁসে উঠেছে রংপুরের মানুষ

ফেনীর সোনাগাজী মাদ্রাসা ছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যার ঘটনায় বিতর্কিত ওসি মোয়াজ্জেমকে পুলিশের রংপুর রেঞ্জে সংযুক্ত করায় ফুঁসে উঠেছে স্থানীয় মানুষ। তাকে ৪৮ ঘন্টার মধ্যে রংপুর রেঞ্জ থেকে প্রত্যাহারের দাবি জানিয়ে শনিবার সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ তাকে রংপুরে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করেছে। মানববন্ধনে তাকে উদ্দেশ্য করে জুতা প্রদর্শন করা হয়।

বেলা ১১ টায় রংপুর মহানগরীর লালবাগে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের ব্যানারে মানবন্ধনে অংশ নেন রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়, কারমাইকেল কলেজসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীসহ সাধারণ মানুষ। মানববন্ধনে ওসি মোয়াজ্জেমের প্রতি ঘৃণা প্রদর্শনের সিম্বল হিসেবে জুতা ও স্যান্ডেল প্রদর্শন করে শিক্ষার্থীরা। পরে লালবাগ থেকে একটি বিক্ষোভ বের হয়ে নগরীর প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন করে। পরিষদের রংপুর বিভাগীয় আহ্বায়ক রায়হান শরিফের সভাপতিত্বে প্রতিবাদ মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন সমন্বয়ক হানিফ খান সজীব, যুগ্ম আহ্বায়ক আলমগীর নয়ন, আলমগীর কবির, বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় কমিটির আহ্বায়ক রোকনুজ্জামান রবিউল, কারমাইকেল কলেজ জাতীয় ছাত্রসমাজের সদস্য সচিব আরিফ আলী, এস শুভ প্রমুখ।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, ওসি মোয়াজ্জেমকে রংপুওে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করা হলো। যেখানেই তাকে পাওয়া যাবে। সেখানেই তাকে প্রতিহত করা হবে। এজন্য ছাত্রসমাজ যে কোন ধরনের পরিস্থিতি মোকাবেলা করবে।

বক্তারা বলেন, আগামী ৪৮ ঘন্টার মধ্যে নুসরাত হত্যার প্ররোচণাকারী বিতর্কিত ওসি মোয়াজ্জেমকে রংপুর রেঞ্জে বদলির আদেশ প্রত্যাহার করা না হলে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, রংপুর রেঞ্জ ডিআইজির কার্যালয় ঘেরাও করে টানা আন্দোলন করা হবে।

প্রসঙ্গত, নুসরাত জাহান রাফিকে পুড়িয়ে হত্যার ঘটনায় গাফিলতির প্রমাণ পাওয়ার পর পুলিশ সদর দফতরের গঠিত তদন্ত কমিটির সুপারিশের ভিত্তিতে সোনাগাজী মডেল থানার ওসি মোয়াজ্জেম হোসেনকে সাময়িক বরখাস্ত করে রংপুর রেঞ্জের ডিআইজির কার্যালয়ে বদলি করা হয়।

mukim group

Leave a Reply

Your email address will not be published.