ময়মনসিংহে হত্যা মামলায় ২জনের ফাঁসি

স্টাফ রিপোর্টার : ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে মরাজের মা (৬০) হত্যাকান্ডে ২ জনের ফাঁসি এবং ২ জনের যাবজ্জীবন ও অর্থ দন্ডের আদেশ দিয়েছেন ময়মনসিংহ জজ কোর্টের স্পেশাল জজ আদালতের বিচার এহসানুল হক। বৃহস্পতিবার দুপুরে আসামিদের উপস্থিতি এ রায় দেয়া হয়। মৃত্যুদন্ড প্রাপ্তরা হলেন ঈশ্বরগঞ্জের মাইজবাগের আব্দুল হেলিম (৪২), আবুল কাশেম (৪০)। এছাড়াও আব্দুল আজিজ এবং খোকন মিয়াকে তিন বছরের কারাদন্ড দেয়া হয়।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী আবুল হাশেম বলেন, ২০০৩ সালে ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে জমি সংক্রান্ত বিরোধে আসামীরা দেশীয় অস্ত্র দিয়ে মরাজের মা’কে হত্যা করে।  এঘটনায় ২৯ জনকে আসামী করে ঈশ্বরগঞ্জ থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়। এ মামলায় ২৫ জনকে খালাস দেয়া হয়।

মামলার বিবরনে প্রকাশ, প্রতিবেশীদের সাথে জমি বিরোধে ২০০৩ সালে ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জ মাইজবাগের বড়জোড়ে গ্রামে মরাজের মাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে বুকে কুপিয়ে হত্যা করে আসামীরা। তৎকালীণ সময়ে ৩৩ জনের বিরুদ্ধে ঈশ্বরগঞ্জ থানায় মৃতের ছেলে আব্দুল সালাম মামলা করেন। পরে থানা পুলিশ আসামিদের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগ পত্র দাখিল করে। মামলা চলাকালীন সময়ে ২জন খালাস ও সময়ের বিবর্তনে আরো ২ জন মারা যান।

প্রায় ১৬ বছর বিচারিক কার্যক্রমের পর ময়মনসিংহের স্পেশাল জজ আদালতে ১৫ জন স্বাক্ষীর স্বাক্ষ্য শেষে বৃহস্পতিবার এহসানুল হক আদালতে হাজির ২৯ জন আসামীর মধ্যে ২ জনের মৃত্যুদন্ড, ২ জনের যাবজ্জীবন ও অর্থ দন্ড এবং বাকীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমানিত না হওয়ায় বেকসুর খালাসের আদেশ দেন।
আসামী পক্ষের আইনজীবী ছিলেন বিশ্বনাথ পাল। অপরদিকে রাষ্ট্র ও বাদী পক্ষের আইনজীবী হিসেবে আবুল হাসেম মামলাটি পরিচালনা করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.