হাইকোর্ট বিভাগের কোর্ট কিপার গোলাম ফারুক ও তার স্ত্রীকে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা

জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন এবং তা দখলে রাখার অপরাধে দোষী সাব্যস্ত করে বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগের কোর্ট কিপার শাখার প্রশাসনিক কর্মকর্তা ও তার স্ত্রীকে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দিয়েছেন আদালত।

আজ বৃহস্পতিবার ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৫ এর বিচারক ড. মো: আখতারুজ্জামান এ রায় দেন।

প্রশাসনিক কর্মকর্তা মো: গোলাম ফারুককে দুর্নীতি দমন কমিশন আইন, ২০০৪ এর ২৬(২) ধারায় ৩ বছর সশ্রম কারাদ-, সেই সাথে ৭০ লাখ ৫১ হাজার ২৯৬ টাকা অর্থদণ্ড আদেশ দেয়া হয়েছে।

স্বামীর অর্জিত সম্পদ বেনামদার হিসেবে দখলে রেখে স্বামীকে অপরাধে সহযোগিতা করার অপরাধে সৈয়দা মমতাজকে দুর্নীতি দমন কমিশন আইন, ২০০৪ এর ২৬ (২)/ দণ্ডবিধির ১০৯ ধারায় ৩ বছর সশ্রম কারাদণ্ড এবং ১০ লাখ টাকা জরিমানা আদেশ দেয়া হয়েছে। আগামী ৬০ দিনের মধ্যে দুজনের অর্থদণ্ডের টাকা রাষ্ট্রের অনুকূলে আদায়ের নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

আসামি মো: গোলাম ফারুক কর্তৃক জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ নিজ দখলে রাখার অপরাধে দুর্নীতি দমন কমিশন আইন, ২০০৪ এর ২৭ (১) ধারায় তাকে আরো তিন বছর সশ্রম কারাদণ্ড এবং ২০ লাখ টাকা অর্থদণ্ড দেয়া হয়েছে।

গোলাম ফারুক কর্তৃক অবৈধভাবে তার দখলে রাখা সম্পত্তি রাষ্ট্রের অনুকূলে বাজেয়াপ্ত করার আদেশ দেয়া হয়েছে। আর তার দণ্ড একটির পর অপরটি কার্যকর হবে বলে আদেশে উল্লেখ করা হয়েছে।

দুই আসামি পলাতক থাকায় তাদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.